আজ ৮ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ, ২২শে মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ

সংগৃহীত ছবি

চট্টগ্রামে কলেজছাত্র খুন, ২ আসামির যাবজ্জীবন


চট্টগ্রাম নগরীর চন্দনপুরায় কলেজছাত্র মাসুদ চৌধুরীকে ২৪ বছর আগে গুলি করে খুনের মামলায় ২ জনের যাবজ্জীবন কারাদণ্ড ও একজনকে খালাস দিয়েছেন আদালত। এছাড়া ২ জনকে ২০ হাজার টাকা করে জরিমানা করা হয়েছে। জরিমানা অনাদায়ে তাকে আরও ১ বছরের বিনাশ্রম কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত। যাবজ্জীবন কারাদণ্ডপ্রাপ্ত আসামিরা হল- মো. রফিক ও আজিম উদ্দিন আহমেদ রাজা। খালাসপ্রাপ্ত আসামি অনুপ মল্লিক।

আজ রবিবার (২৭ নভেম্বর) সকালে চতুর্থ অতিরিক্ত চট্টগ্রাম মহানগর দায়রা জজ শরীফুল আলম ভূঁঞার আদালত এই রায় দেন। বিষয়টি নিশ্চিত করেন আদালতের বেঞ্চ সহকারী ওমর ফুয়াদ।

আদালত সূত্রে জানা গেছে, চন্দনপুরা দারুল উলুম মাদরাসার সামনে ১৯৯৮ সালের ১৬ নভেম্বর কলেজছাত্র মাসুদ চৌধুরীকে তার বাড়ির সামনে গুলি করে খুন করা হয়। এ ঘটনায় কোতোয়ালী থানায় হত্যা মামলা দায়ের করেন মাসুদের চাচা হারুন চৌধুরী। পুলিশ তদন্তে তিনজনকে আসামি করে ১৯৯৯ সালের ৩০ অক্টোবর আদালতে অভিযোগপত্র দাখিল করে। এ ঘটনায় প্রত্যক্ষদর্শী হিসেবে আব্দুল হালিম নামে একজন আদালতে ১৬৪ ধারায় জবানবন্দি দিয়েছিলেন। ২০০১ সালের ১৮ ফেব্রুয়ারি তিন আসামির বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠন করা হয়। অভিযোগপত্রে ২৩ জনকে সাক্ষী করা হলেও আদালতে ১৩ জনের সাক্ষ্যগ্রহণ করা হয়।

অতিরিক্ত মহানগর পিপি নোমান চৌধুরী বলেন, চন্দনপুরায় কলেজছাত্র মাসুদ চৌধুরীকে খুনের ঘটনায় দায়ের করা মামলায় ২ জনকে যাবজ্জীবন সশ্রম কারাদণ্ড, ২ জনকে ২০ হাজার টাকা করে জরিমানা করা হয়েছে। জরিমানা অনাদায়ে আরও ১ বছরের বিনাশ্রম কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত। যাবজ্জীবন কারাদণ্ডপ্রাপ্তদের মধ্যে মো. রফিক রায় ঘোষণার সময় আদালতে উপস্থিত ছিলেন। তাকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন আদালত। যাবজ্জীবন কারাদণ্ডপ্রাপ্ত আজিম উদ্দিন পলাতক এবং অনুপ মল্লিক জামিনে আছেন।

তথ্যসূত্র: পূর্বকোণ


Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     এই বিভাগের আরও খবর