আজ ৯ই আশ্বিন, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ২৪শে সেপ্টেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ

ভয়ংকর সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ডে পেশায় ভাড়া খাটছে তারা, ভাড়ার অস্ত্রে নির্বাচনে সহিংসতা


সাতকানিয়ায় নির্বাচনী সহিংসতার ঘটনায় ৮ জনকে গ্রেপ্তার করেছে র‌্যাব। তারা হলেন- সাতকানিয়ার জামাল উদ্দীনের ছেলে নাসির উদ্দীন (৩১), হাজী শামসুল ইসলামের ছেলে মো. মোরশেদ (২৬), সাত্তার মিয়ার ছেলে কোরবান আলী (৩৭), মৃত আলী আহম্মদের ছেলে মো.ইসমাইল (৫৫), মো. জসিম (২৪), মো. মিন্টু (২৬), মো. কায়েস (২২) ও মো. নুরুল আবছার (৩৩)।

সোমবার (১৪ ফেব্রুয়ারি) চট্টগ্রাম মহানগরী, চন্দনাইশ, সাতকানিয়া, বান্দরবান সদর ও রাজধানীর তেজকুনিপাড়া থেকে তাদের গ্রেপ্তার করা হয়।

৭ ফেব্রুয়ারি সপ্তম ধাপে চট্টগ্রামের সাতকানিয়ায় ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। নির্বাচনে দুই প্রার্থীকে বিজয়ী করতে মরিয়া হয়ে ওঠে সশস্ত্র সন্ত্রাসী গোষ্ঠী। তারা ভাড়া করা অস্ত্রে ইউপি নির্বাচনে ব্যাপক সহিংসতা চালায়। ওই সহিংসতায় দুজন নিহত ও অর্ধশতাধিক মানুষ আহত হন। ঘটনার পরবর্তী পরিস্থিতির কারণে ভাড়ার অস্ত্র লুকিয়ে রেখে আত্মগোপনে যান জড়িতরা।

ওই সহিংসতার ঘটনায় জড়িতদের কেউ ফুল বিক্রেতা, কেউ গাড়িচালক, কেউ রাজমিস্ত্রী, কেউ বা জমির দালাল। নিজ পেশার আড়ালে তারা একেকজন ভয়ংকর সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ডে জড়িত বলে দাবি র‌্যাবের।

মঙ্গলবার (১৫ ফেব্রুয়ারি) দুপুরে রাজধানীর কারওয়ান বাজার র‌্যাব মিডিয়া সেন্টারে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে র‌্যাব সদরদপ্তরের লিগ্যাল অ্যান্ড মিডিয়া উইংয়ের পরিচালক কমান্ডার খন্দকার আল মঈন এসব কথা বলেন।


Leave a Reply

Your email address will not be published.

     এই বিভাগের আরও খবর