আজ ২০শে অগ্রহায়ণ, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ, ৫ই ডিসেম্বর, ২০২৩ খ্রিস্টাব্দ

উখিয়া ময়নারঘোনা ১১নং ক্যাম্পে ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ড


টেকনাফ প্রতিনিধি

কক্সবাজারের উখিয়া ময়নারঘোনা ১১নং ক্যাম্পে অগ্নিকাণ্ডে অন্তত ২ হাজার শেল্টার পুড়ে গেছে। এতে ঘরছাড়া হয়েছে ১২ হাজার রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠী। আজ রবিবার (৫ মার্চ) বিকেল ৩টার সময় রোহিঙ্গা (এফডিএমএন) ক্যাম্প-১১ এর ডি, এ ও বি ব্লকে এ অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটে।

কক্সবাজার উখিয়া ৮ এপিবিএন সহকারী পুলিশ সুপার (অপস্ এন্ড মিডিয়া) মো. ফারুক আহমেদ সংবাদের সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, “আজ রবিবার আনুমানিক ৩টার সময় রোহিঙ্গা (এফডিএমএন) ক্যাম্প-১১ এর ডি ব্লকে আকস্মিকভাবে অজ্ঞাত কারণে আগুনের সূত্রপাত হয়। আগুন এ ক্যাম্পের ব্লক-ডি, এ ও বি এলাকায় ছড়িয়ে পড়ে। আগুনের সংবাদ পেয়ে ৮ এপিবিএন-এর অফিসার ফোর্স এবং ফায়ার সার্ভিসের সম্মিলিত প্রচেষ্টায় আড়াই ঘণ্টা পর বিকাল সাড়ে ৫টার সময় আগুন নিয়ন্ত্রণে আনা সম্ভব হয়। এতে আনুমানিক ২ হাজারেরও বেশি শেল্টার পুড়ে গেছে এবং প্রায় ১২ হাজারের মতো রোহিঙ্গা ঘরছাড়া হয়েছে। তবে এখন পর্যন্ত হতাহতের কোনো তথ্য পাওয়া যায় নাই।”

এদিকে, যে সকল রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠীর শেল্টার পুড়ে গেছে তাদেরকে শরণার্থী, ত্রাণ ও প্রত্যাবাসন কমিশনার (আরআরআরসি) ব্যবস্থাপনায় বিভিন্ন লার্নিং সেন্টার, মাদ্রাসা ও এনজিও প্রতিষ্ঠানে ইউএনএইচসিআর, আইওএম ও ডব্লিউএফপি তাদেরকে থাকার ব্যবস্থা ও খাবার সরবরাহ করার কাজ করছে।

সহকারী পুলিশ সুপার (এএসপি) মো. ফারুক আহমেদ আরো জানান, ঘটনার সংবাদ পেয়ে তাৎক্ষণিকভাবে ৮ এপিবিএন-এর অধিনায়ক (অতিরিক্ত ডিআইজি) মো. আমির জাফর, বিপিএম ও সহ অধিনায়ক(পুলিশ সুপার) খন্দকার ফজলে রাব্বি ঘটনাস্থলে উপস্থিত থেকে আগুন নিয়ন্ত্রণের লক্ষ্যে সার্বিক দিক নির্দেশনা প্রদান করেন।


Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     এই বিভাগের আরও খবর