আজ ৪ঠা শ্রাবণ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ, ১৯শে জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ

ছবি: বৃক্ষরোপণ কর্মসূচির উদ্বোধন করছেন সংগঠনের সভাপতি আলহাজ্ব রেজাউল আলী জসীম চৌধুরী

মাইজভাণ্ডারী গাউসিয়া হক কমিটির উদ্যোগে মাসব্যাপী বৃক্ষরোপণ কর্মসূচি


অনলাইন ডেস্কঃ প্রতিবছরের মতো এবারের বর্ষাতেও বৃক্ষরোপন কর্মসূচি গ্রহণ করেছে
মাইজভাণ্ডারী গাউসিয়া হক কমিটি বাংলাদেশ। সম্প্রতি সংগঠনটির এ কর্মসূচী উদ্বোধন করেছেন সভাপতি জনাব আলহাজ্ব রেজাউল আলী জসীম চৌধুরী।

চট্টগ্রাম পাচলাইশ থানাধীন হামজারবাগস্থ শাহানশাহ হক ভাণ্ডারী খানকাহ শরীফে এই বৃক্ষরোপণ কর্মসূচীর উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে ফলজ ও বনজ বৃক্ষের চারা বিতরণ করা হয়।

আলহাজ্ব রেজাউল আলী জসীম চৌধুরী এসময় বলেন, ‘বাছ-বিচারহীনভাবে সবুজ বনানী নিধনের ফলে বিশ্ব জলবায়ু পরিমন্ডলে যে বিরুপ প্রভাব, তার ক্ষতিকর প্রভাব থেকে পরিবেশকে রক্ষা করতে বৃক্ষরোপণ কোনো বিকল্প নেই।’

তিনি মাইজভাণ্ডারী গাউসিয়া হক কমিটি বাংলাদেশ কেন্দ্রীয় পর্ষদ এর নিয়ন্ত্রণাধীন প্রায় আটশত এর অধিক শাখাকমিটিসমূহকে অত্যন্ত গুরুত্বের সাথে প্রতিবারের মতো এবারের বৃক্ষরোপণ কর্মসূচী সফল করার জন্য উদাত্ত আহ্বান জানান এবং সেই নিরিখে প্রয়োজনীয় নির্দেশনা প্রদান করেন।

আরও পড়ুন পবিত্র আশুরা উপলক্ষ্যে মাইজভাণ্ডার দরবার শরীফে মাহফিল ১৮ জুলাই

অনুষ্ঠানে জানানো হয়, সামাজিক দায়বদ্ধতা থেকে মাইজভান্ডারী গাউসিয়া হক কমিটি বাংলাদেশ প্রতিবছরই নিয়মিতভাবে এই কর্মসূচী পালন করে থাকে। প্রতিবছর প্রায় ১০ সহস্রাধিক গাছের চারা এ কর্মসূচির মাধ্যমে রোপণ করা হয়।

এসময় উপস্থিত ছিলেন কেন্দ্রীয় পর্ষদ সহ-সভাপতি জনাব সৈয়দ ফরিদ উদ্দিন আহমদ, কেন্দ্রীয় পর্ষদ সদস্য সর্বজনাব শেখ মুজিবুর রহমান বাবুল, ডা. মাসুদ, বীর মুক্তিযোদ্ধা এম শামসুল আলম, সাহেদ আলী চৌধুরী, শেখ মাকসুদুর রহমান দুলাল, আবুল কালাম, মোহাম্মদ আলমগীর, মাওলানা হাবিবুল হোসাইন, তাজ মো. মিয়া, এস এম মোর্শেদূল আমিন, মোহাম্মদ হারেছ, এইচ এম জসীম উদ্দিন জিকো, শফিউল আজম নেজাম, এম মকসুদুর রহমান হাসনু, নুরুল করিম নুরু,মোহাম্মদ আলী, ফজলুল করিম ফজু, সাংবাদিক সফিউল আলম, মোহাম্মদ হাসেম, জয়নাল আবেদীন জুলু, মাওলানা আবুল বাশার, মাহাবুবুল আলম শাহ্, সিরাজুল হক সিআইপি, আমির খসরু, এস এম মহিবুল্লাহ, মোহাম্মদ রেজোয়ান নূর সিদ্দিকী উজ্জ্বল, মো. আশরাফুজ্জামান, এইচ এম আলী আবরাহা দুলাল, আশরাফ সিদ্দিকী, দিদারুল আলম, মোহাম্মদ আজম, মোহাম্মদ নাসির উদ্দীন প্রমুখ।


Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     এই বিভাগের আরও খবর