আজ ৮ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ, ২২শে মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ

সংগৃহীত ছবি

প্রকৌশল ও প্রযুক্তিতে নারী ক্ষমতায়ন চায় আইইইই


অনলাইন ডেস্কঃ স্বল্পোন্নত দেশগুলোর (এলডিসি) টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রা (এসডিজি) অর্জনে নারীর ক্ষমতায়ন উল্লেখযোগ্য হারে বাড়ানোর বিকল্প নেই। অন্তর্ভুক্তিমূলক উন্নয়ন নিশ্চিত করতে প্রকৌশল ও প্রযুক্তিতে নারী ক্ষমতায়ন করার বিষয়ে গুরুত্ব দিয়ে কাজ করছে ইনস্টিটিউট অব ইলেকট্রিক্যাল অ্যান্ড ইলেকট্রনিক্স ইঞ্জিনিয়ার্স (আইইইই), বাংলাদেশ সেকশন। সম্প্রতি রাজধানীতে অনুষ্ঠিত এক সেমিনারে এ বিষয়ে সরকারি-বেসরকারি সহযোগিতা প্রত্যাশা করে সংস্থাটি।

আইইইই বাংলাদেশ সেকশন ও গ্লোবাল আইইইই উইমেন ইন ইঞ্জিনিয়ারিং অ্যাফিনিটি গ্রুপের সহযোগিতায় ‘ওমেন্স হিস্টোরি মান্থ’ উপলক্ষ্যে অনুষ্ঠিত ঐ সেমিনারে আইইইই উইমেন ইন ইঞ্জিনিয়ারিং গ্লোবাল চেয়ার প্রফেসর সেলিয়া শাহনাজ ইন্ডাস্ট্রি ও একাডেমিয়াতে বিপুল সংখ্যক নারীর প্রত্যক্ষ অংশগ্রহণ নিয়ে আলোকপাত করেন।

প্যানেল স্পিকার বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের উপ-সচিব সুমনি আক্তার একজন নারী হিসাবে তার কর্মজীবনের চ্যালেঞ্জগুলি কিভাবে কাটিয়ে উঠেছেন সে বিষয়ে বলেন, ‘আমি আমার দায়িত্ব পালন করার জন্য সর্বোচ্চ চেষ্টা করেছি। সৌভাগ্যবশত আমি আমার পরিবারকে সবসময় আমার পাশে পেয়েছি।’

আরও পড়ুন ইন্টারনেট কানেকশন কী স্লো হয়ে গেছে আজ? কারণ জেনে নিন

এনার্জিপ্যাক ইঞ্জিনিয়ারিং এর উপ-মহাব্যবস্থাপক প্রমিতি আলম এবং রবি আজিয়াটার সহ-সভাপতি অনামিকা ভক্ত ছাড়াও আইইইই বাংলাদেশ সেকশনের চেয়ার অধ্যাপক মশিউল হকের পরিচালনায় প্যানেল আলোচনায় অংশ নেন আইইবির এজিএস প্রকৌশলী রনক আহসান, এমআইএসটির ড. আমিনুল মিঠু, কুয়েটের ড. নরত্তোম রায় প্রমুখ।

উল্লেখ্য, আইইইই হচ্ছে ইলেকট্রিক্যাল এন্ড ইলেকট্রনিকস ইঞ্জিনিয়ারিং এবং সংশ্লিষ্ট বিভিন্ন শাখার জন্য একটি বৈশ্বিক পেশাদার অ্যাসোসিয়েশন যার কর্পোরেট হেডকোয়ার্টার আমেরিকার নিউইয়র্ক সিটিতে অবস্থিত। এটি বিশ্বের ১৬০টি দেশে চার লক্ষাধিক সদস্য নিয়ে গঠিত প্রযুক্তিগত পেশাদারদের বৃহত্তম সংগঠন। নিকোলা টেসলা, টমাস আলভা এডিসন প্রমুখ বিজ্ঞানী ও উদ্ভাবকরা নেতৃত্ব দিয়েছেন ১৪০ বছরের প্রাচীন স্বনামধন্য এই পেশাজীবি সংগঠনের।

তথ্যসূত্র: বাসস


Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     এই বিভাগের আরও খবর