আজ ২৪শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ৯ই ডিসেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ

চকবাজার ওয়ার্ড আওয়ামীলীগ

নিত্যপণ্যের দাম বাড়িয়েছে ব্যবসায়ী সিন্ডিকেট: আ জ ম নাছির


কিছু সুবিধাভোগী অসৎ মুনাফাখোর ব্যবসায়ীর সিন্ডিকেট নিত্যপণ্যের দাম অযৌক্তিকভাবে বৃদ্ধি করে চলেছে বলে মন্তব্য করেছেন মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আ জ ম নাছির উদ্দীন। তিনি বলেন, এদের এই খেলা অবশ্যই বন্ধ করতে হবে এবং প্রশাসনকে নিত্যপণ্যের বাজার দর কঠোরভাবে মনিটরিং করে সাধারণ মানুষের জীবনমানের সুরক্ষা নিশ্চিত করতে হবে।
আজ শনিবার (১৭ সেপ্টেম্বর) চট্টগ্রামের চকবাজারে আনিকা কমিউনিটি সেন্টারে চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগের আওতাধীন ১৬ নম্বর চকবাজার ওয়ার্ডের কাউন্সিল অধিবেশনে তিনি এসব কথা বলেন। কাউন্সিল অধিবেশনে মোজাহেরুল ইসলাম চৌধুরীকে সভাপতি ও মো. শাহেদুল আজম শাকিলকে সাধারণ সম্পাদক করে ১৬ নম্বর চকবাজার ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের নতুন কমিটি গঠিত হয়।
আ জ ম নাছির বলেন, বৈশ্বিক অর্থনৈতিক মন্দাজনিত কারণে অনেক উন্নত দেশ হিমশিম খেলেও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বাংলাদেশের সামগ্রিক অর্থনৈতিক পরিস্থিতি ও সাধারণ মানুষের জীবনমান সহনীয় পর্যায়ে রেখেছেন।
বিএনপির রাজনৈতিক আন্দোলন সম্পর্কে তিনি বলেন, বিএনপি বার বার আন্দোলনের ঘোষণা দেয় কিন্তু তাদের আন্দোলন প্রকৃত অর্থেই জনস্বার্থ সংশ্লিষ্ট কি না, তা অবশ্যই ভেবে দেখতে হবে। অতীতে এই হাওয়া ভবন থেকে সকল অপকর্মের নীলনকশা বাস্তবায়িত হয়েছে। দেশ থেকে বিদেশে অর্থ ও সম্পদ পাচারের সকল পরিকল্পনা এখান থেকে পরিচালিত হয়। তিনি প্রশ্ন করেন বিএনপির কার্যকরী চেয়ারম্যান যিনি দণ্ডিত অপরাধী এবং রাজনীতি করবে না বলে স্বেচ্ছায় মুচলেখা দিয়ে লন্ডনে বসে রাজনীতি করছেন তিনি বেকার হয়েও সেখানে কীভাবে রাজকীয় জীবন যাপন করতে পারেন।
অধিবেশনে বক্তব্য রাখেন মহানগর আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি মাহতাব উদ্দীন চৌধুরী। তিনি বলেন, দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন সংবিধান অনুযায়ী হবে। এই বাইরে কিছুই করা সম্ভব নয়। এই নির্বাচন যাতে সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষভাবে সুসম্পন্ন হয় এবং সাধারণ মানুষ যাতে তাদের ভোটাধিকার নির্বিঘ্নে প্রদান করতে পারে সে ব্যাপারে নির্বাচন কমিশনের ঘোষিত রোডম্যাপ অনুযায়ী কার্যক্রম পরিচালিত হবে। যারা এই নির্বাচনকে বাঞ্চাল করার জন্য নানামুখী ষড়যন্ত্র করছে তারা কখনো জনগণের প্রকৃত সেবক নয়। এরা লুন্ঠনকারী রাজনৈতিক ও অর্থনৈতিক দুর্বৃত্ত যারা অতীতে দেশকে ধ্বংসের মুখে ঠেলে দিয়েছিল।
অধিবেশনে অন্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগের সহ সভাপতি নঈম উদ্দীন চৌধুরী, অ্যাডভোকেট ইব্রাহিম হোসেন চৌধুরী বাবুল, খোরশেদ আলম সুজন, আলতাফ হোসেন চৌধুরী বাচ্চু, উপদেষ্টা সফর আলী, সাংগঠনিক সম্পাদক নোমান আল মাহমুদ, শফিক আদনান, চৌধুরী হাসান মাহমুদ হাসনী, প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক শফিকুল ইসলাম ফারুক ও তথ্য ও গবেষণা সম্পাদক চন্দন ধর প্রমুখ।


Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     এই বিভাগের আরও খবর